মঠবাড়িয়া প্রতিনিধি >>

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার সংসদ সদস্য সদ্য জাতীয় পার্টিতে যোগদানকারী ডা. রুস্ত আলী ফরাজির কর্মী সভায় হামলার ঘটনা ঘটেছে। আগামী ২৭ ফের্রুয়ারী মঠবাড়িয়ায় জাতীয় পার্টি আয়োজিত চেয়ারম্যান হুসাইন মোহাম্মদ এরশাদের জনসভা সফল করার লক্ষে সদ্য এমপি রুস্তম আলী ফরাজির কর্মী সভায় আজ মঙ্গলবার দুপুরে সাপলেজা ইউনিয়নের নলী তুলাতলা গ্রামের চৌরাস্তা মোড়ে এ হামলার ঘটনা ঘটে। হামলায় গুরুতর আহত এমপির সমর্থক জাকির হোসেন (৩৫) কে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তির পর উন্নত চিকিৎসার জন্য দুপুরেই বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।

স্থানীয় সাংসদ ও জাতীয় পাটির্র (এ) কেন্দ্রিয় কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান ডা. রুস্তম আলী ফরাজী অভিযোগ করেন, মঠবাড়িয়ায় আগামী ২৭ ফেব্রুয়ারি জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হোসেইন মোহাম্মদ এরশাদসহ, মন্ত্রী, জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্যসহ নেতৃবৃন্দের আগমন সফল করতে আজ মঙ্গলবার দুপুওে উপজেলার নলী তুলাতলায় কর্মী সভায় নেতা কর্মীরা যোগ দেয়। আমি সভা স্থলে যাওয়ার পূর্বেই স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও যুবলীগ নেতা মিরাজ মিয়ার নির্দেশে জাহিদুল, পলাশ, সুমন, রাসেল ও আল-আমীনের নেতৃত্বে আমার কর্মী-সমর্থকদের উপর হামলা চালানো হয়। এ সময় আমার সমর্থক জাকিরকে মারধর করে এবং সভার চেয়ার ভাংচুর করে সভা পন্ডের চেষ্টা চালানো হয়।

অভিযুক্ত ইউপি চেয়ারম্যান মিরাজ মিয়া তার বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, স্থানীয় ঠিকাদার জসিম উদ্দিন ও জাকির হোসেনের সাথে জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিলো। ওই বিরোধের জের ধরে সভাস্থলে দুই গ্রুপে মারামরিতে জড়িয়ে পড়ে। আমাকে সামাজিকভাবে হেয়প্রতিপন্ন করার জন্য স্থানীয় এমপি আমাকে ও আমার সমর্থকদের এ ঘটনায় জড়াচ্ছেন।

মঠবাড়িয়া থানার ওসি কেএম তারিকুল ইসলাম জানান, এ ঘটনায় লিখিত অভিযোগ পেলে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

SIMILAR ARTICLES

মন্তব্য নেই

মন্তব্য করুন