বরগুনা প্রতিনিধি <>

এসপি, ডিসি, জেলা জজ কিংবা এমপিও নয়, সহস্রাধিক মানুষের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত বিশাল এক ইফতার মাহফিলের প্রধান অতিথি হলেন সামান্য একজন অনাথ শিশু। মাদকমুক্ত বরগুনা গড়ার শ্লোগান নিয়ে আজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বরগুনা জেলা পুলিশের উদ্যোগে পুলিশ লাইন মিলনায়তনে এ ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।

অনুষ্ঠানে বরগুনা-১ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট ধীরেন্দ্র দেবনাথ শম্ভু, বরগুনার জেলা প্রশাসক মো. মোখলেছুর রহমান, ভারপ্রাপ্ত জেলা ও দায়রা জজ এ ই এম ইসমাইল হোসেন, পুলিশ সুপার বিজয় বসাক, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আব্বাস হোসেন মন্টু, বরগুনা পৌরসভার মেয়র মো. শাহাদাত হোসেনসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার এক হাজার প্রতিনিধি অংশ নেয়।

জেলা পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, এবারের ইফতার মাহফিল ও দোয়া অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন হাফিজুর রহমান (১০) নামের একজন অনাথ শিশু। সে বরগুনা ইসলামিয়া থানা মাদরাসার তৃতীয় শ্রেণির শিক্ষার্থী। হাফিজুর রহমান সদর উপজেলার আয়লা-পাতাকাটা ইউনিয়নের লেমুয়া গ্রামের মরহুম জয়নাল হাওলাদারের ছেলে। জেলার গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিবর্গের পাশাপাশি এ ইফতার মাহফিলে শারীরিক ও দৃষ্টি প্রতিবন্ধীসহ দুই শতাধিক অসহায় ও দুঃস্থ মানুষকেও আমন্ত্রণ জানানো হয় এ ইফতার মাহফিল ও দোয়া অনুষ্ঠানে।

বরগুনা জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি সাহাব উদ্দিন সাবু জানান, ইফতার মাহফিল ও দোয়া অনুষ্ঠান হিসেবে জেলা পুলিশের আয়োজিত এ অনষ্ঠানটি অমশ্যই ভিন্নতার দাবি রাখে। নামী দামী এত অতিথির ভিড়ে একজন অনাথ শিশুকে প্রধান অতিথি করে মানবতা ও মানবিকতার ভিন্ন এক উদাহরণ তৈরি করেছে বরগুনা জেলা পুলিশ।

জেলা পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, জেলার গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিবর্গের পাশাপাশি শারীরিক ও দৃষ্টি প্রতিবন্ধীসহ দুই শতাধিক অসহায় ও দুঃস্থ মানুষকেও আমন্ত্রণ জানানো হয় এ ইফতার মাহফিল ও দোয়া অনুষ্ঠানে। বরগুনার পুলিশ সুপার বিজয় বসাক জানান, রমজান আমাদের একাধারে সংযমী হওয়ার পাশাপাশি মানবিক হওয়ারও শিক্ষা দেয়। তাই বরগুনা জেলা পুলিশ প্রতিবছরই একজন অনাথ শিশুকে প্রধান অতিথি করে স্থানীয় প্রতিবন্ধী ও দুস্থ অসহায় মানুষদের বিশেষ অতিথি করে ইফতার মাহফিল ও দোয়া অনুষ্ঠান আয়োজন করে আসছে। তিনি আরও বলেন, এবারের অনুষ্ঠানে মাদকমুক্ত বরগুনা গড়ার লক্ষ্যে বিশেষ ক্যাম্পেইন করা হয়।

SIMILAR ARTICLES

মন্তব্য নেই

মন্তব্য করুন