মার্চ ৩০, ২০২০

আজকের মঠবাড়িয়া

সত্য প্রচারে সোচ্চার

মঠবাড়িয়ায় স্কুলছাত্রীকে রেখে রাতভর পালাক্রমে ধর্ষণ 🔸অভিযুক্ত দুই ধর্ষক গ্রেফতার

মঠবাড়িয়া প্রতিনিধি <>

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় দশম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রী (১৫) কে আটকে রেখে রাতভর পালাক্রমে ধর্ষনের ঘটনায় জড়িত নয়ন মোল্লা (১৯) ও আরিফুল ইসলাম (২০) নামে দুই ধর্ষককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রবিবার দিনগত রাত সাড়ে তিনটার দিকে পৌরশহরের গলাকাটা ব্রীজ সংলগ্ন একটি বাসা থেকে ওই স্কুল ছাত্রীকে উদ্ধারের পর ধর্ষক দুইজনকে আটক করা হয়।

অভিযুক্ত ধর্ষক নয়ন উপজেলার বাদুরতলী গ্রামের মজিবর মোল্লার ছেলে ও আরিফুল জরিপের চর গ্রামের মৃত. বাদশা মিয়ার ছেলে।
পুলিশ জানায়, শহরের দশম শ্রেণির ওই স্কুলছাত্রী রাত সাড়ে ৯টার দিকে প্রাইভেট পড়ে বাসায় ফেরার পথে ওই দুই লম্পট পথ থেকে জোরপূর্বক তুলে নিয়ে শহরের গলা কাটা ব্রীজ সংলগ্ন ইলিয়াসের বাসায় নিয়ে আটকে রাখে। এরপর বখাটে নয়ন মোল্লা ও আরিফুল ইসলাম গভীর রাত পর্যন্ত পালাক্রমে ওই স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ করে।
এদিকে ওই ছাত্রী বাসায় না ফেরায় তার পরিবারের সদস্যরা খোজাখুঁজি করে না পেয়ে স্কুলছাত্রী নিঁখোজ বিষয়ে পুলিশকে অবহিত করে।
মঠবাড়িয়া থানার উপ-পরিদর্শশ শহিদুল ইসলাম গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রাত সাতে তিন টার দিকে ইলিয়াসের বাসায় অভিযান চালিয়ে স্কুলছাত্রীকে উদ্ধার করে। এসময় পুলিশ দুই ধর্ষককে আটক করে ।

এ ব্যাপারে মঠবাড়িয়া থানার ওসি মাসুদুজ্জামান বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় ভূক্তভোগি স্কুলছাত্রীর পরিবারের পক্ষ হতে মামলা দায়ের করা হয়েছে। স্কুল ছাত্রীকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য আজ সোমবার পিরোজপুর জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয়ে পাঠানো হয়েছে।