বরগুনার পাথরঘাটায় নিষিদ্ধ নোট-গাইড বই বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন করেছে পাথরঘাটা প্রেসক্লাব।

আজ রবিবার সকাল ১০টায় পাথরঘাটা পৌর শহরের শেখ রাসেল স্কয়ারে এ মানববন্ধনের আয়োজন করা হয়। মানববন্ধনে ছাত্র, শিক্ষক, অভিভাবক, মুক্তিযোদ্ধা, সাংবাদিক, আইনজীবী, জনপ্রতিনিধি, সুশীল সমাজসহ সহস্রাধিক মানুষ অংশ নেয়।

এ সময় পাথরঘাটা প্রেসক্লাবের সভাপতি মির্জা শহিদুল ইসলাম খালেদ তার বক্তব্যে বলেন, শিক্ষার্থীদের পাঠ্যপুস্তক পাঠে আগ্রহ করে তোলার লক্ষ্যে সরকার নোট-গাইড নিষিদ্ধ করেছে। এ ব্যাপারে সরকারের কঠোর আইন রয়েছে। আমরা শিক্ষার্থীদের মেধা বিকাশে ওই আইন বাস্তবায়নের দাবি জানাই। একই সঙ্গে নিম্নমানের গ্রামার ও ব্যাকরণ শিক্ষার্থীদের মেধার বিকাশ বাধাগ্রস্ত হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, অসাধু প্রস্তক ব্যবসায়ী ও প্রকাশনা সংস্থার লোকজন টাকার বিনিময়ে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রধানকে ম্যানেজ করে নোট-গাইড কিনতে বাধ্য করেন শিক্ষার্থীদের। এতে বাধ্য হয়ে শিক্ষার্থীরা নোট-গাইড নির্ভর হয়ে পড়ছে। আমরা এ নোটগাইড নির্ভর শিক্ষা ব্যবস্থার বিরুদ্ধে সোচ্চার। তাই সৃজনশীল শিক্ষা ববস্থার জন্য নোট গাইডের বিরুদ্ধে আমরা প্রশাসনের আশু ব্যবস্থা দেখতে চাই।

মানববন্ধনে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সাংবাদিক গোলাম মোস্তফা চৌধুরী, আমিন সোহেল, জাফর ইকবাল, মুক্তিযোদ্ধা মোস্তাফিজুর রহমান, নবনির্বাচিত পৌর কাউন্সিলর মুনিরা ইয়াসমিন খুশি, মোসাফেফর হোসেন বাবুল, উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক গোলাম মাওলা মিলন, আইনজীবী নূরুল ইসলাম, তাসলিমা মেমোরিয়াল একাডেমির প্রধান শিক্ষক আবুল বাশার আজাদ, স্বেচ্ছা সেবী সংগঠন রক্তের বন্ধনের সভাপতি রুহি আনান দানিয়াল, প্রত্যয় এর সভাপতি মেহেদী হাসান প্রমুখ।

এ প্রসঙ্গে পাথরঘাটা উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মোস্তফা আলম বলেন, মাধ্যমিক পর্যায়ে ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণি পর্যন্ত নোট-গাইড নিষিদ্ধ করেছে। তাছাড়া সরকার বিনামূল্যে গ্রামার ও ব্যাকরণ বইও দিচ্ছে। তাই আলাদাভাবে ব্যাকরণ ও গ্রামার কেনার প্রয়োজন নাই।

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) গোলাম হায়দার বলেন, প্রাথমিক পর্যায়ে দ্বিতীয় থেকে পঞ্চম শ্রেণি পর্যন্ত নোট-গাইড নিষিদ্ধ করেছে। সৃজনশীল শিক্ষা ব্যবস্থায় নোট-গাইডের প্রয়োজন নেই, শ্রেণি কক্ষেই পাঠদান চূড়ান্ত হয়ে যায়।

এ ব্যাপারে বরগুনা জেলা প্রশাসক মীর জহুরুল ইসলাম বলেন, নোটগাইড আইনত নিষিদ্ধ। পাথরঘাটাসহ পুরো জেলায় নোট-গাইড বন্ধে শীঘ্রই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

SIMILAR ARTICLES

মন্তব্য নেই

মন্তব্য করুন