গোপালগঞ্জের ভোজেরগাতী গ্রামে রাতের আঁধারে দুই ভাই রায়হান সরদার (১০) ও রইজ সরদারকে (৪) শ্বাসরোধে হত্যার পেছনে মায়ের পরকীয়া প্রেম দায়ী বলে জানা গেছে।

নিজের পরকীয়া প্রেমিকের পরামর্শে নিজের সন্তানদের শ্বাসরোধে হত্যা করেছেন বলে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন পুলিশের হাতে আটক গৃহবধূ জান্নাতুল ফেরদাউস কুলসুম।

শনিবার (৫ ডিসেম্বর) দুপুরে গোপালগঞ্জের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট গৌতম কুমার ঘোষের আদালতে এ জবানবন্দি দেন তিনি।

এরআগে গত বৃহস্পতিবার (৩ ডিসেম্বর) রাত পৌনে ৯টার দিকে ভোজেরগাতী গ্রামের মাওলানা ইউসুফ সরদারের দুই শিশু সন্তানকে হাত-পা বেঁধে ও গলায় ওড়না পেঁচিয়ে বালিশ চাপা দিয়ে হত্যা করা হয়।

গোপালগঞ্জের সহকারী পুলিশ সুপার (সার্কেল) আমীনুল ইসলাম পুলিশ জানান, মোবাইল ফোনে মাদারীপুরের রানা নামে এক বিবাহিত ব্যক্তির সঙ্গে কুলসুমের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। প্রেমিক রানার কথামতো ওইদিন রাতে নিজের দুই সন্তানকে হত্যার পরিকল্পনা করেন কুলসুম। শনিবার তিনি আদালতে তা স্বীকার করেছেন।

সন্তান হত্যার ঘটনায় শুক্রবার রাতে কুলসুমের স্বামী মাওলানা ইউসুফ সরদার বাদী হয়ে থানায় মামলা করেন।

SIMILAR ARTICLES

মন্তব্য নেই

মন্তব্য করুন