আজকের মঠবাড়িয়া অনলাইন ডেস্ক >>

দেশের প্রতিটি উপজেলায় একটি করে মিনি স্টেডিয়াম করার পরিকল্পনা নিয়েছে সরকার। সারাদেশে ৪৯০টি মিনি স্টেডিয়াম নির্মাণ করা হবে। ইতোমধ্যে ১৩১টি মিনি স্টেডিয়াম নির্মাণের টেন্ডার ও ওয়ার্ক অর্ডার হয়েছে। ৩ একর জমি নিশ্চিত হলেই মিনি স্টেডিয়াম করা হবে।

আজ মঙ্গলবার জাতীয় সংসদে প্রশ্নোত্তর পর্বে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী ড. বীরেন শিকদার এ তথ্য জানান।

সরকার দলীয় সংসদ সদস্য শরিফ আহমেদ, নুরুল ইসলাম চৌধুরীসহ একাধিক এমপির সম্পূরক প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী আরো জানান, এলাকার ছেলে মেয়েদের খেলাধুলায় উৎসাহিত করতে এই মিনি স্টেডিয়াম করা হচ্ছে। এখানে কোন স্কুল, কলেজের মাঠে মিনি স্টেডিয়াম করা যাবে না। শুধুমাত্র ৩ একর জমি নিশ্চিত হলেই শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়াম করা হবে।

তিনি জানান, প্রতিটি উপজেলায় মিনি স্টেডিয়াম করার পরিকল্পনার অংশ হিসেবে ১৩১টির টেন্ডার ও নির্মাণ আদেশ হয়েছে। পর্যায়ক্রমে সব উপজেলাই এই মিনি স্টেডিয়াম হবে।

বিএনএফ সভাপতি এস এম আবুল কালাম আজাদের অপর সম্পূরক প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী বলেন, গুলশান এলাকায় স্পোর্টস কমপ্লেক্স করা হবে। এই কমপ্লেক্সের মাধ্যমে গুলশান এলাকার সবাই উপকৃত হবে। টিএ্যান্ডটি মাঠকে মিনি স্টেডিয়াম করার বিষয়ে বললে এবং অনাপত্তি পত্র দিলে বিষয়টি বিবেচনা করা যাবে।

প্রতিমন্ত্রী জানান, দেশের বেকার যুবসমাজের বেকারত্ব দূর করে আত্মনির্ভরশীল ও কর্মমুখী করে জাতীয় উন্নয়নে তাদের সম্পৃক্ত করার লক্ষ্যে বর্তমান সরকারের কার্যকর কর্মসূচিসমূহের মধ্যে ন্যাশনাল সার্ভিস কর্মসূচি সরকারের একটি অগ্রাধিকার কর্মসূচি।

সূত্র > কালের কণ্ঠ

মন্তব্য নেই

মন্তব্য করুন