পিরোজপুর প্রতিনিধি  >
পিরোজপুর সদর উপজেলার তেজদাসকাঠি এলাকায় রোববার বিকেলে তেজদাসকাঠি কলেজের একাদশ শ্রেনীর (বিজ্ঞান) ছাত্রী আমিনা রহমান আঁখি (১৬) দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে আহত হবার প্রতিবাদে ও বিচারের দাবীতে মানব বন্ধন করেছে কলেজ ও বিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রী, শিক্ষক গন। বুধবার তেজদাসকাঠী বিদ্যালয়ের সামনে ত্রিশ মিনিটের মানববন্ধনে আহত ছাত্রীর পিতা মোঃ আনিসুর রহমান ও স্থানীয়রা অংশ গ্রহন করেছে।
এসময় বক্তব্য রাখেন কলেজ অধ্যক্ষ মোঃ শহীদুল ইসলাম, ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ চাঁন মিয়া মাঝি, শিউলী বেগম, জয়নুল আবেদীন, আহত ছাত্রীর পিতা আনিসুর রহমান ও কলেজ ছাত্রী কারিমা খানম প্রমুখ।
বক্তরা স্থানীয় জলিল মোল্লার বখাটে ছেলে আসামী সজল মোল্লাকে (২৬) গ্রেফতার করে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্থি দাবী করেছেন। এসময় তারা তেজদাসকাঠিতে একটি অস্থায়ী পুলিশ কেন্দ্র স্থাপনেরও জোড় দাবী জানান।
আহত কলেজ ছাত্রীর পিতা রেন্ট-এ মোটর সাইকেল ড্রাইভার মোঃ আনিছুর রহমান জানান, গত রোববার কলেজ ছুটি শেষে আঁখি দুপুরে বাড়ির উদ্দেশ্যে রওনা দেয়। কিছুদূর যাবার পর বখাটে সজল মোল্লা (২৬) ও দুই ইভটিজার আঁখিকে একা পেয়ে উত্তক্ত করতে থাকে। এক পর্যায় দুর্বৃত্তের লুকানো ছুরির আঘাতে তার মেয়ে রক্তাক্ত জখম হয়। তিনি তার মেয়ের উপর হামলাকারীদের অবিলম্বে গ্রেফতার করে বিচারের দাবী জানান।

SIMILAR ARTICLES

মন্তব্য নেই

মন্তব্য করুন