পিরেজপুর প্রতিনিধি🔹
নিখোঁজের ৩ দিন পর পিরোজপুর সদর উপজেলার কদমতলা ইউনিয়নের ভোড়া দাখিল মাদ্রাসার সেফটি ট্যাংক থেকে আয়েশা আক্তার (২৪) নামে এক মহিলার অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার রাত ৮ টার দিকে পিরোজপুর থানার পুলিশ এ লাশ উদ্ধার করে। গত শুক্রবার থেকে আয়েশা নিখোঁজ ছিল।
পিরোজপুর সদর থানার ওসি (তদন্ত) হাসনাইন পারভেজ জানান, কদমতলা ইউনিয়নের পোরগোলা গ্রামের মৃত শাহজাহান সেখের মেয়ে আয়েশা বাড়িতে একাই থাকতো। গত শুক্রবার রাত থেকে সে নিখোঁজ ছিল। সোমবার রাতে ইউনিয়নের ভোড়া দাখিল মাদ্রাসার সেফটি ট্যাংক থেকে তার অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করা হয়। মৃত আয়শা আক্তার (২৫) সদর উপজেলার কদমতলা ইউনিয়নের পোরগোলা গ্রামের মৃত শাহজাহান শেখের কন্যা।
পিরোজপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোল্লা আজাদ হোসেন জানান, স্থানীয়রা ভোরা দাখিল মাদ্রাসার সেটফ ট্যাঙ্ক থেকে পঁচা লাশের গন্ধ পেয়ে পুলিশ কে খবর দেয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মাদ্রাসার সেফটি ট্যাঙ্ক থেকে আয়শার লাশ উদ্ধার করে। প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে আয়শা কে গলায় ওড়না পেছিয়ে হত্যা করে লাশ গুম করার উদ্যেশে মাদ্রাসার সেফটি ট্যাঙ্কে ফেলে রাখা হয়েছে।
উদ্ধার হওয়া আয়শা শুক্রবার রাত থেকে নিঁেখাজ ছিল। তবে এ বিষয়ে থানায় তার আত্মীয়-স্বজন কেউ সাধারণ ডায়েরী করে নাই। লাশ ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে এবং এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে আরো জানান এ কর্মকর্তা।

অপরদিকে জেলার নাজিরপুরের তালতলা নদী থেকে অজ্ঞাত এক পুরুষ ব্যক্তির (৩৫) ভাসমান লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার উপজেলার মালিখালী ইউনিয়নের মালিখালী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে তালতলা নদী থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়।
নাজিরপুরের মাটিভাঙ্গা তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ পুলিশ পরিদর্শক মিজানুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, সোমবার দুপুরের দিকে উপজেলার মালিখালী ইউনিয়নের মালিখালী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে তালতলা নদীতে ভাসমান লাশ দেখতে পেয়ে স্থানীয়রা থানায় খবর দিলে ঘটনাস্থল থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। তার বয়স অনুমান ৩৫ বছর হবে। লাশটির মুখমন্ডলে হালকা দাড়ি,পরনে ফুল প্যান্ট ও ফুল শার্ট রয়েছে। পায়ে চামড়ার বেল্টওয়ালা সেন্ডেল ও হাতে ঘড়ি ছিল। মুখে কসটেপ পেঁচানো এবং শরীরে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। লাশ দুটির ময়না তদন্তের জন্য পিরোজপুর সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে

মন্তব্য নেই

মন্তব্য করুন