মঠবাড়িয়া প্রতিনিধি >>

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় সেহরীর খাবারে চেতনানাশক দ্রব্য মিশিয়ে অজ্ঞান করে রুহল আমীন নামে এক শিক্ষকের পরিবারের মালামাল লুটে নিয়েছে অজ্ঞাত দুর্বৃত্তরা। আজ বুধবার ভোর রাতে মঠবাড়িয়া পৌরশহরের পশ্চিম মিঠাখালী মহল্লায় এ ঘটনা ঘটে। অভিনব কায়দায় সেহরীর খাবার সামগ্রীর সাথে চেতনা নাশক দ্রব্য মিশিয়ে ওই শিক্ষক পরিবারের তিন জনকে অজ্ঞান করে নগদ টাকাসহ স্বর্নালংকার লুটে নেয় দুর্বৃত্তরা। এতে গুরুতর অসুস্থ তিনজনকে প্রতিবেশীরা উদ্ধার করে মঠবাড়িয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

হাসপাতাল ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, পৌর এলাকার পশ্চিম মিঠাখালী ১নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা মাদ্রাসা শিক্ষক রুহুল আমীনের পরিবারের সেহরী খাবার সামগ্রীতে অজ্ঞাত দুর্বৃত্তরা গভীর রাতে চেতনা নাশক দ্রব্য মিশিয়ে দেয়। ভোর রাতে শিক্ষক পরিবারের সদস্যরা ওই সেহরী খাবার পর ঘুমের ঘোরে সকলে অচেত হয়ে পড়েন। এতে গৃহ কর্তার বৃদ্ধ পিতা পৌর শহরের দক্ষিণ বন্দর জামে মসজিদের সাবেক ঈমাম আবদুস ছত্তার ক্বারী (৯০), মাদ্রাসা শিক্ষক রুহুল আমীন (৬০) ও তার স্ত্রী মরিয়ম আমীন (৫০) গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন। অসুস্থ তিন জন অচেতন অবস্থায় হাসপাতালে চিকিৎসাধিন রয়েছেন।

এ বিষয়ে মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ ( তদন্ত) মোহাম্মদ মাজহারুল আমীন বলেন , বিষয়টি মৌখিকভাবে শুনেছি। তবে এ ঘটনায় ভূক্তভোগি পরিবারের পক্ষ হতে এখনও লিখিত অভিযোগ পাওয়া যায়নি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দেবদাস মজুমদার
আঞ্চলিক প্রতিনিধি,পিরোজপুর।
০১৭১২৫৮৫৯০১

SIMILAR ARTICLES

মন্তব্য নেই

মন্তব্য করুন