মঠবাড়িয়া প্রতিনিধি >>

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া থানা পুলিশ ৩০ থেকে ৩৫ বছর বয়সী অজ্ঞাত এক মুসলিম তরুণের লাশ উদ্ধার করেছে। আজ সোমবার সন্ধ্যা সাতটার দিকে মঠবাড়িয়ার বড়মাছুয়া ইউনিয়নের কালিরহাট গ্রামের একটি খাল থেকে ওই তরুণের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। তবে নিহত লাশের এখনও কোন পরিচয় মেলেনি। তবে পুলিশ জানিয়েছে অজ্ঞাত ওই তরুণকে পরিকল্পিতভাবে হত্যার পর লাশ খালে ভাসিয়ে দেওয়া হয়েছে। তার শরীরের বিভিন্ন স্থান বিশেষ করে কনুই ও পায়ের গোড়ালীতে ধারালো অস্ত্রের কোপ রয়েছে।

থানা ও স্থানীয় সূত্রে জানাগেছে, আজ সোমবার বিকালে উপজেলার কালিরহাট গ্রামের একটি খালে স্থানীয়রা লাশ ভাসতে দেখে থানায় খবর দেয়। পরে পুলিশ খাল হতে নিহতর লাশ উদ্ধার করে। নিহত ওই তরুণের পরিচয় উদঘাটন করা যায়নি।

এ ব্যাপারে মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ কে.এম তারিকুল ইসলাম লাশ উদ্ধারের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,নাম পরিচয়হীন ওই মুসলিম তরুণকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যার করা হয়েছে প্রাথমিক তদন্তে নিশ্চিত হওয়া গেছে। গত ২/১দিন আগে সে এ হত্যাকান্ডের শিকার হয়ে থাকতে পারে। তার শরীরে ধারালো অস্ত্রের কোপ রয়েছে।

তিনি আরও জানান, আগামীকাল মঙ্গলবার লাশ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা মর্গে পাঠানো হবে। এ ঘটনায় মঠবাড়িয়া থানার উপ পরিদর্শক মো. নূর আমীন বাদি হয়ে এরকটি হত্যা মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে।

SIMILAR ARTICLES

মন্তব্য নেই

মন্তব্য করুন