মঠবাড়িয়া প্রতিনিধি >>

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে মাদক সেবনে  দেয়ায় মাদক বখাটেরা   মোঃ শহীদুল ইসলাম (৩২) নামে এক নৈশ প্রহরীকে মারধর করে আহত করেছে।  গত মঙ্গলবার  বিদ্যালয় চলাকালে এ ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত মাদকসেবিরা  তাকে প্রাণ নাশেরও হুমকি দিচ্ছে। এঘটনায় নৈশ প্রহরী শহীদুল ইসলাম গতকাল বুধবার রাতে জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে মঠবাড়িয়া থানায় একটি সাধারণ ডায়রী করেন। শহীদুল ইসলাম উপজেলার বেতমোর গ্রামের আবদুল মোতালেব এর পুত্র ও ৮০ নং বিএন হাট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নৈশ প্রহরী।
থানা সূত্রে জানাযায়, উপজেলার বেতমোর ইউপি সদস্য সাহিদা বেগমের বখাটে সোহাগ ছেলে (২৫), একই বাড়ির ফুলমিয়ার ছেলে মিরাজ (২২) ও তার বড়ভাই জাফরের সহযোগিতায় দীর্ঘ দিন ধরে স্থানীয় ৮০ নম্বর বিএন হাট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় চলাকালে পরিত্যাক্তা ভবনে গাজা সেবন  করে আসছিল।  গত মঙ্গলবার ওই বখাটে নেশা খোররা প্রতিদিনের ন্যায় বিদ্যালয় ঢুকে নেশা করছিল। এসময় ওই বিদ্যালরে নৈশ প্রহরী মো. শহীদুল ইসলাম বাধা দিলে বখাটেরা বেধড়ক মারধর করে। আহত শহিদুল স্থানীয় বাজারে প্রাথমিক চিকিৎসা নেয়।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এসএম ফরিদ উদ্দিন জানান, মৌখিকভাবে শুনে সরকারী কর্মচারীকে মারধর করায় থানা লিখিত অভিযোগ করতে বলা হয়।
মাঠবাড়িয়া থানার ইন্সপেক্টার (তদন্ত)মাজাহারুল আমীন থানায় জিডি করার সত্যতা নিশ্চত করে বলেন, এবিষয়ে আরও একটি লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে। তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

SIMILAR ARTICLES

মন্তব্য নেই

মন্তব্য করুন